Deprecated: mysql_connect(): The mysql extension is deprecated and will be removed in the future: use mysqli or PDO instead in /home/sumon09/public_html/include/config.php on line 2
 ৪২ লাখ গাছের চারা বিতরণ করছে বিএটি

২১ জুলাই ২০১৮


হোম   »   কৃষি তথ্য   »   এনজিও ও কৃষি সংগঠন  
৪২ লাখ গাছের চারা বিতরণ করছে বিএটি

চলতি বৃক্ষ রোপণ মৌসুমে ব্রিটিশ আমেরিকান টোবাকো ( বিএটি ) সারাদেশে তাদের লিফ এরিয়াতে ৪২ লাখ বিভিন্ন প্রজাতির গাছের চারা বিতরণ শুরু করেছে। এ চারা বিএটির কুষ্টিয়া, আলস্নারদরগা, মেহেরপুর, ঝিনাইদহ, রংপুর, মানিকগঞ্জ, চট্টগ্রাম, রাঙ্গুনিয়া লিফ ডিপো নিজস্ব নার্সারিতে তৈরি করা হয়েছে। বিএটির তামাক চাষি ও আগ্রহী বন সৃজনকারিদের মাঝে বিনামূল্যে এ চারা বিতরণ করা হচ্ছে।

বিএটির এক নির্বাহী কর্মকর্তা জানান, কুষ্টিয়া লিফ এরিয়াতে এবার ১২ লাখ ৭৫ হাজার বিভিন্ন প্রজাতির বৃক্ষের চারা তৈরি করা হয়েছে। এ চারা বিতরণে ইতিমধ্যে শুরু করা হয়েছে। আগে বিএটি শুধু দ্রম্নত বর্ধনশীল ইপিল ইপিল গাছের চারা তৈরি করত। বর্তমানে তারা কাঠ বৃক্ষের পাশাপাশি ফলদ, বনজ ও ঔষধি বৃক্ষের চারা তৈরি ও বিতরণ করছে।

১৯৮০ সালে প্রথম বিএটি সরকারের সহযোগী হিসাবে বন সৃজন কর্মসূচি শুরু করে। তখন তারা শুধু বনজ গাছ ইপিল ইপিল গাছের চারা তৈরি ও কোম্পানির নিজস্ব চাষিদের মাঝে বিতরণ করত। কিন্তু চাষিদের মাঝে বৃক্ষ রোপণের কোন আগ্রহ ছিল না। তারা কোম্পানির ডিপো থেকে চারা নিয়ে রাস্তায় ফেলে যেত। আস্তে আস্তে মানুষের মাঝে বন সৃজনের আগ্রহের সৃষ্টি হয়। তারা বুঝতে পারে গাছ সমৃদ্ধি বয়ে আনে। তারপর চাষি বন সৃজনে ঝোঁকে।

বিএটির উদ্যোগে অনেক চাষি জিকে প্রকল্পের খালের পাড় ও রেললাইনের পাশ লিজ নিয়ে বিশাল বিশাল বন সৃষ্টি করে লাখপতি হন। তাদের দেখাদেখি আরো অনেকে বন সৃজনে এগিয়ে আসে। গাছে গাছে ভরে উঠতে থাকে এ এলাকা। ১৯৮০ সালের পর এ অঞ্চলে গড়ে উঠতে থাকে বেসরকারি নার্সারি। বর্তমানে পশ্চিমের বিভিন্ন জেলাতে নার্সারি শিল্পের ব্যাপক প্রসার ঘটেছে। নার্সারিগুলোতে লাখ লাখ বিভিন্ন প্রজাতির চারা তৈরি হয়। বর্ষা মৌসুমে হাট-বাজারে পৃথক গাছের চারার হাট বসে। মানুষ বাজার করে বাড়ি ফেরার সময় পছন্দ মত একটি গাছের চারা কিনে নিয়ে যায়। যত্ন করে বাড়ি লাগায়। বর্তমানে বনায়ন পশ্চিমের বিভিন্ন জেলাতে আন্দোলনের রূপ পেয়েছে। বিএটি সূত্রে জানা যায়, বনায়ন কর্মসূচি শুরু থেকে এপর্যন্ত কোম্পানি সাড়ে ৬ কোটি গাছের চারা তৈরি করে আগ্রহী চাষি ও ব্যক্তির মধ্যে বিনামূল্যে বিতরণ করেছে। তাছাড়াও রাস্তা ও খালের পাড়ে নিজস্ব ব্যয়ে বন সৃজন করে দিয়েছে।
পাতাটি ২২০৬ প্রদর্শিত হয়েছে।
এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ

»  কুড়িগ্রামের পাঁচগাছী ইউনিয়নে ধানবীজ বিতরণ

»  ভোলায় গো খাদ্যের চাহিদা মেটাতে প্যারা জাতীয় ঘাষ চাষ

»  প্রান্তিক চাষীদের মাঝে পাওয়ার টিলার বিতরণ

»  আদিবাসীদের মধ্যে ফলদ বৃক্ষের চারা বিতরণ

»  ৪২ লাখ গাছের চারা বিতরণ করছে বিএটি