Deprecated: mysql_connect(): The mysql extension is deprecated and will be removed in the future: use mysqli or PDO instead in /home/sumon09/public_html/include/config.php on line 2
 কম খরচে চারা রোপণ ও আগাছা দমন

২৬ জুন ২০১৮


হোম   »   কৃষি তথ্য   »   সংবাদপত্রে কৃষির খবর  
কম খরচে চারা রোপণ ও আগাছা দমন

হাইব্রিড ও উফসী জাতের বোরো চারা জমিতে স্বল্প খরচে রোপণ এবং আগাছা দমনে বাড়তি সুবিধার জন্য কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর এবার টাঙ্গাইলে রাইস ট্রান্সপ্লান্টার যন্ত্র ব্যবহারে কৃষকদের উত্সাহিত করছেন। খামার যান্ত্রিকীকরণের এ অভিনব সুবিধা পাওয়ায় অবস্থাপন্ন কৃষকদের মধ্যে বোরো চাষে বাড়তি উদ্দীপনা দেখা দিয়েছে।

জেলা কৃষি সমপ্রসারণ বিভাগ জানায়, টাঙ্গাইলের ধনবাড়ি, মধুপুর, ঘাটাইল, কালিহাতি ও সখিপুর উপজেলার অবস্থাপন্ন গৃহস্থদের হাইব্রিড ও উফসী ফসল আবাদ এবং বাড়তি উত্পাদনে উত্সাহিত করার জন্য খামার যান্ত্রিকীকরণ কর্মসূচির আওতায় রাইস ট্রান্সপ্লান্টার প্রযুক্তি গ্রহণ করা হয়। মাঠ পর্যায়ে কৃষকদের প্রশিক্ষণ এবং সুফলের জন্য কৃষি সমপ্রসারণ বিভাগ কাজ করছে।

স্থানীয় কৃষিবিদরা জানান, মান্ধাতার আমলের লাঙ্গলে জমি চাষে খরচ বেশি পড়ায় শতকরা ৮৫ ভাগ কৃষক কলের লাঙ্গল ও ট্রাক্টরে জমি চাষ করছে। কিন্তু প্রতি বছর বোরো চারা রোপণ মৌসুমে কৃষি শ্রমিকের অভাবে কৃষকদের দুর্ভোগ পোহাতে হয়। বিশেষ করে হাইব্রিড ও উফসী বোরো চারা নির্দিষ্ট সময়ে রোপণে বাধ্যবাধকতা থাকায় শ্রমিক সংকটে যথাসময়ে বোরো আবাদে অনিশ্চয়তা দেখা দেয়। তাছাড়া হাতে বোরো চারা রোপণে সময় লাগে অনেক বেশি। উফসী ও হাইব্রিড বোরোতে আগাছার উপদ্রব বেশি থাকায় বাড়তি কামলা লাগে। এজন্য স্বল্প খরচে দ্রুত বোরো চারা রোপণে কৃষি সমপ্রসারণ অধিদপ্তর খামার যান্ত্রিকীকরণ কর্মসূচির আওতায় শতকরা ২৫ ভাগ ভর্তুকির মাধ্যমে কৃষকদের মধ্যে রাইস ট্রান্সপ্লান্টার মেশিন সরবরাহের ব্যবস্থা করেছে। চীন থেকে আমদানি করা এসব মেশিনের দাম পড়ে ৫ থেকে ১২ লাখ টাকা। এক লিটার জ্বালানি তেলে এ মেশিনের সাহায্যে ঘন্টায় ৪৫/৫০ শতাংশ জমিতে চারা রোপণ করা যায়। অথচ প্রচলিত পদ্ধতিতে শ্রমিকের সাহায্যে দেড় বিঘা জমিতে বোরো চারা রোপণে খরচ পড়ে দেড়-দুই হাজার টাকা। এ যন্ত্রের সাহায্যে এক সাথে চার সারিতে চারা লাগানো যায়। এতে চারা নষ্ট হয় না। বীজতলা তৈরিতেও এ মেশিন কাজে আসে। এ যন্ত্রের সাহায্যে ১৫/২০ দিন বয়সী চারাও রোপণ করা যায়। সারিবদ্ধভাবে বীজ চারা রোপণ করায় জমির আগাছা সহজেই দমন করা যায়। মধুপুর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা ড. হযরত আলী জানান, খামার যান্ত্রিকীকরণ ও ফসল উত্পাদন বৃদ্ধি প্রকল্পের আওতায় রাইস ট্রান্সপ্লান্টারের সাহায্যে কম খরচে বেশি ফসল উত্পাদনের সুযোগ পাচ্ছে কৃষক। এর সাহায্যে বোরো চারা রোপণ প্রদর্শনী উপলক্ষে গত শনিবার ধনবাড়ি উপজেলার বাঘিল গ্রামে কৃষক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। কৃষিবিদ জয়নাল আবেদীনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান মুহাম্মদ আলী কিসলু। বক্তব্য রাখেন রাইস ট্রান্সপ্লান্টার প্রকল্প পরিচালক শেখ নাজিম উদ্দিন, উদ্ভিদ সংরক্ষণ বিশেষজ্ঞ নিরঞ্জন সরকার, ইউপি চেয়ারম্যান কামাল হোসেন তালুকদার, কৃষি সমপ্রসারণ অফিসার তাহমিনা ইয়াসমিন প্রমুখ।

সূত্র: দৈনিক ইত্তেফাক
পাতাটি ২১৫০ প্রদর্শিত হয়েছে।
এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ

»  চাই কৃষিবান্ধব তথ্যপ্রযুক্তি

»  উত্তরাঞ্চলে ৫০ হাজার বিঘায় সয়াবিন চাষের পরিকল্পনা

»  আলু চাষে সাফল্য পেতে চান চৌগাছার কৃষকরা

»  তালায় লবণসহিঞ্চু টমেটো চাষে ব্যাপক সাফল্য

»  ফসলি জমিতে সারের ব্যবহার আশঙ্কাজনক হারে বাড়ছে